যেকোন নারীকে ১ ঘন্টায় নিজের প্রতি আকৃষ্ট করার উপায়

যেকোন নারীকে ১ ঘন্টায় নিজের প্রতি আকৃষ্ট করার উপায়ঃ

হ্যালো ভিউয়ারস্ প্রতিবারের মতো এবারও আমরা আরও একটি নতুন বিষয় নিয়ে আপনাদের সামনে হাজির হয়েছে আমাদের আজকের নতুন বিষয় ত্রিভুবন বশীকরণ মন্ত্র।  আপনি যদি এই ত্রিভুবন আপনার বশীভূত করতে চান তাহলে আজ আমি আপনাদের সামনে যে মন্ত্রটি তুলে ধরব এর সঠিক ব্যবহার যদি আপনি করতে পারেন তাহলে আপনি সফলতা পাবেন।  এর পূর্বে আমরা বিভিন্ন ধরনের বশীকরণ মন্ত্র আপনাদের সামনে তুলে ধরেছি আজ ও আমরা আপনাদের সামনে এই বশীকরণ মন্ত্র টি তুলে ধরেছি তবে অবশ্যই আপনি যদি এটি ব্যবহার করতে চান তাহলে অবশ্যই আপনাকে সঠিক নিয়ম কানুন মেনে চলতে হবে তাহলে আপনি সর্ব ক্ষেত্রে সফলতা পাবেন। তাহলে চলুন প্রথমে আমরা মন্ত্রটি দেখে নেই-

“ ওহম্ নমো ভগবদী মাতেশ্বরী সর্বমুখর জানি সর্বথা

মহামায়া মাতংগে কুমারিকে নন্দ নন্দ জিহ্ সর্বলোক বশ্য

কুরু কুরু স্বাহা।”

প্রয়োজনীয় সামগ্রী: আপনি যদি এই বশীকরণ মন্ত্র প্রয়োগ করে ত্রিভুবন আপনার বশীভূত করতে চান তাহলে অবশ্যই আপনাকে কিছু প্রয়োজনীয় সামগ্রী সংগ্রহ করতে হবে। এর পূর্বে আমরা যে সমস্ত বশিকরন মন্ত্র আপনাদের সামনে তুলে ধরেছি সেগুলো ব্যবহারের জন্য বিভিন্ন ধরনের প্রয়োজনীয় সামগ্রী প্রয়োজন হয়েছে। আজও আমরা যে মন্ত্র টি আপনাদের সামনে তুলে ধরছি এর জন্য কিছু প্রয়োজনীয় সামগ্রী সংগ্রহ করতে হবে চলুন সেগুলো দেখে নিই – শ্বেত বিষ্নু কান্তার শিকড়।

নিয়ম কানুন: প্রথমেই আমরা আপনাদেরকে বলবো মন্ত্রটি দেখে খুব ভালো হবে সঠিক উচ্চারণ করুন এবং মুখস্ত করুন। আপনি যদি সঠিকভাবে মন্ত্র উচ্চারণ করতে না পারেন বা মন্ত্র পাঠের যদি ভুল হয় তাহলে এই অন্ধ প্রয়োগে আপনি কোন ধরনের ফলাফল পাবেন না এজন্য আপনি অবশ্যই প্রথমে মন্ত্র খুব ভালোভাবে মুখস্থ করে নিন। মন্ত্র মুখস্ত করা হয়ে গেলে তারপর আপনি মন্ত্র কে সিদ্ধ করে নিন। মন্ত্রকের সিদ্ধ করে নেবার জন্য আপনি চন্দ্র গ্রহণের দিন এই মন্ত্র ১০ হাজার বার জপ করুন তাহলে মন্ত্র টি সিদ্ধ হবে।

প্রয়োগ বিধি: মন্ত্র সিদ্ধ করা হয়ে গেলে এই মন্ত্র প্রয়োগের মাধ্যমে যদি আপনি ত্রিভুবন আপনার বশীভূত করতে চান তাহলে আপনাকে চন্দ্রগ্রহণের দিন বিষ্ণু কান্তার শিকড় এনে উপরক্ত মন্ত্র ১০০০ বার পাঠ করে অভিমন্ত্রিত করে আপনার চোখে লাগালে ত্রিভুবন আপনার বশীভূত হবে।

বি. দ্র: আপনি যদি এই মন্ত্রটি ব্যবহার করতে চান তাহলে অবশ্যই কোন গুরু অনুমতি নিবেন তারপর চিন্তা ভাবনা করে আপনি কাজটি করবেন। যদি আপনি কাউকে মন থেকে ভালবেসে করতে চান তবেই এই কাজে সফলতা পাবেন। আমাদের মাধ্যমে যেকোন নারী কিংবা প্রেমিক প্রেমিকাকে বশ করতে পারবেন তবে সেটা করতে হলে অবশ্যই হাদিয়া প্রযোজ্য হবে। ধন্যবাদ।।